Saturday, April 20, 2024
More
    HomeTechnical Textileজামা থেকেই হবে ফোন চার্জ

    জামা থেকেই হবে ফোন চার্জ

    হঠাৎ যদি রাস্তায় আপনার ফোনের চার্জ শেষ হয়ে যায়,কেমন হবে তখন যদি আপনি আপনার পরনের জামা থেকে ফোন চার্জ করতে পারেন?
    অবাক শোনালেও এমন এক ‘ই টেক্সটাইল’ ফেব্রিক আবিষ্কার করেছেন বিজ্ঞানীরা।

    Wearable Electromagnetic Energy Harvesting Textile (WETH) হলো ইলেকট্রিকাল আর টেক্সটাইল এর সমন্বয়ে উদ্ভাবিত একটি ফেব্রিক।
    সাধারণ যেকোনো ফেব্রিক এর মতো এটি পরিধানযোগ্য,সেই সাথে এই ফেব্রিক এর রয়েছে একটি বিশেষ সুবিধা যায় মাধ্যমে আগামী প্রজন্মের জীবন যাত্রা হবে আরো সহজ।
    এই টেক্সটাইল ফেব্রিক সূর্যের আলো আর পরিধানকারীর চলাচলের উপর ভিত্তি করে বিদ্যুৎ উৎপন্ন করবে।
    উৎপন্ন চার্জ ব্যবহারের আগ পর্যন্ত ফেব্রিকে জমা থাকে এবং পরিধানকারীর কোনো ক্ষতি করেনা।
    মানবদেহ থেকে দুই রকম এনার্জি পাওয়া যায়,সেই এনার্জি কনভার্ট করেই এই চার্জ পাওয়া সম্ভব।
    হাটা চলার মাধ্যমে মানুষের শরীর থেকে মেকানিক্যাল এনার্জি এবং থার্মাল এনার্জি পরিবেশে মুক্ত হয়।
    শরীর থেকে নির্গত এই এনার্জির পরিমাণ সর্বোচ্চ ৪৫০০০০ mAh, ৩.৩ ভোল্ট ব্যাটারির সমতুল্য।তাই এ থেকে সহজেই বুঝা যায়,এই পরিমান এনার্জি থেকে খুব সহজ ভাবেই স্মার্ট ফোন চার্য করা সম্ভব।

    চলাচল এর সময় যে বিদ্যুৎ তৈরি হচ্ছে তা সংরক্ষণের জন্য মিডিয়াম হিসেবে ব্যাবহৃত হয় ইয়ার্ন কয়েল এবং দুটি ম্যাগনেট। ইয়ার্ন কয়েল এর ‘টার্ন’ যাকে বাংলায় ‘প্যাঁচ’ বলা হয় তা বৃদ্ধি করলে, ম্যাগনেটের দূরত্ব কমালে,কানেকশন সিরিজে থাকলে এবং ব্যাক্তির হাটার স্পিড বাড়লে বিদ্যুৎ উৎপাদন এর হার বেড়ে যায়। একটি গবেষণায় দেখা যায়,দুটির পরিবর্তে একটি ম্যাগনেট ব্যাবহার করা হলে ইলেক্ট্রোম্যাগনেটিক এনার্জি ১.৬১ টাইমস কমে যায়।
    কয়েল এর সাইজ এমন ভাবে করা হয় যাতে তা ড্রেস পরলেও কমফোর্টেবল হয়।সেই সাথে কয়েল এবং চার্জিং ডিভাইস এক সাথে কানেকশন দিতে ‘টেক্সটাইল ক্যাবল’ ব্যাবহার করা হয়।সম্পূর্ণ কয়েলটি ১০০% পলিস্টার, ওভেন ফেব্রিক দিয়ে আবৃত করা হয়। টেক্সটাইল ক্যাবলটি ফেব্রিক এর দ্বারা আবৃত থাকে।
    এইসব ছাড়াও এই ফেব্রিক এর দ্বারা চার্যিং এফিশিয়েন্সি আরো বেশি এবং সহজে চার্জ এর পরিমান বাড়ানোর জন্য তিনটা সার্কিট এড করা হয়ে থাকে, ১) রেক্টিফায়ার সার্কিট, ২) ভোল্টেজ ডাবোলার, ৩) ভোল্টেজ কোয়াডরিপুলার

    এই তিনটি সার্কিট এর মাঝে রেক্টিফায়ার সার্কিট সবচেয়ে বেশি পরিমান চার্জিং এফিশিয়েন্সি বাড়াতে সক্ষম। মানব শরীর থেকে উৎপাদিত চার্জ ‘AC’ ফর্মে থাকে। রেক্টিফায়ার সার্কিট ‘AC’ ফর্মকে ‘DC’ তে রুপান্তরিত করে। অন্য যেকোনো সার্কিট এর থেকে রেক্টিফায়ার সার্কিট দ্বি-গুন স্পিড এ চার্জ জেনারেট করতে সক্ষম। তাই এই পোর্টেবল ডিভাইস তথা এই ফেব্রিক এ রেক্টিফায়ার এর ব্যাবহার সর্বউপযোগী। ভোল্টেজ ডাবোলার এবং ভোল্টেজ কোয়াডরিপুলার এর মাধ্যমে ‘DC’ ভোল্টেজ এর আউটপুট দ্বি-গুন হয় এবং ইনপুট চার গুন বৃদ্ধি পায়।
    Wearable Electromagnetic Energy Harvesting Textile (WETH) এ ব্যবহৃত ফেব্রিকটি ম্যানমেইড ফেব্রিক। পলিস্টার ফেব্রিক সবচেয়ে বেশি গ্রহণযোগ্য এই কাজের জন্য। ফেব্রিক টি খুবই ফ্লেক্সিবল এবং ওজনে হালকা। যেকোনো ম্যানমেইড ফেব্রিক এর এই সাধারণ বৈশিষ্ট্য গুলো ছাড়াও এই বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী ফেব্রিক এর আরেকটা বিশেষ বৈশিষ্ট্য হলো যেকোনো আবহাওয়া ও পরিবেশেই এটি বিদ্যুৎ তৈরিতে সক্ষম।

    এই ফেব্রিক এর মাধ্যমে যে বিদ্যুৎ শক্তি পাওয়া যায় তা দিয়ে শুধু ফোন চার্য দেয়া যাবে,এর মধ্যেই সীমাবদ্ধ নয়। ফোন ছাড়াও যেকোনো ডিভাইস এই কনফিগারেশন এর মধ্যে হলে সেটাও পরিপূর্ণ ভাবে চার্জ করা যাবে।উদাহরণ হিসেবে পাওয়ার ব্যাংক, ছোট সাউন্ড বক্স,বিভিন্ন ধরনের ব্যাটারিও চার্য দেয়া যাবে।
    এতো এতো সুবিধাজনক একটা ফেব্রিক হওয়ার পরেও এই ফেব্রিক এর মাঝে আরো কিছু উন্নত বৈশিষ্ট্য আনার চেষ্টায় আছেন বিজ্ঞানীরা। এখন পর্যন্ত এই ফেব্রিক এর কোনো ইন্ডাস্ট্রি প্রোডাকশন হয়নি।
    আরো কয়েক বছর আপেক্ষা করতে হবে পৃথিবীবাসীকে টেকনোলজির এই অনন্য সৃষ্টিকে রেগুলার লাইফে ব্যাবহার যোগ্য করে তুলতে।
    তবে আগামী প্রজন্মের জন্য এই ফেব্রিক একটি আশীর্বাদ কারণ এই ফেব্রিক জীবনযাত্রা আরো সহজ করে দিবে।রাস্তায় বা কোনো স্থানে বিদ্যুৎ সংযোগ না থাকলে আমার প্রয়োজন অনুযায়ী জামা থেকে চার্য দিয়ে আমাদের কাজ করতে পারবো।

    Source: fashion and textiles, online Library,
    fashnerd

    Writer’s Information

    Name: Nure Arfi
    Year: Second year, First semester
    Batch: 39
    University: Ahsanullah University of Science and Technology

    RELATED ARTICLES

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    - Advertisment -

    Most Popular

    Recent Comments