Home Career TES এর ব্যবস্থাপনায় সম্পন্ন হলো Color Matching & Composition এর উপর...

TES এর ব্যবস্থাপনায় সম্পন্ন হলো Color Matching & Composition এর উপর ওয়ার্কশপ

আশিক মাহমুদ, নিজস্ব প্রতিবেদক।

ভিজুয়াল আর্টে (ভাস্কর্য, চিত্রকর্ম, গ্রাফিকস্- ইত্যাদি) রঙের সঠিক ব্যবহারের গুরুত্ব যে অনেক, এ নিয়ে কারো সন্দেহ থাকার কথা নয়। রং কত প্রকার ও কী কী, কোন রং কোথায় দেওয়া উচিত, কোন রঙের সাথে কোন রং মানানসই, রং কীভাবে মানুষের মনে দাগ কাটে- এসব নিয়ে বিস্তর গবেষণা হয়েছে, হচ্ছে। রং তত্ত্বের মূল বিষয়গুলো হল রং কয় ধরণের হয়, কোন রঙের সাথে কোন রং মেশালে কী হয়, কোন রং চোখের দেখায় ঠাণ্ডা বা গরম মনে হয়, কোন রঙ দেখতে ভারী আর কোনটা হালকা? রং তত্ত্বের মূল বিষয়গুলোর সাথে টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারস সোসাইটির সদস্যদের পরিচয় করিয়ে দিতে “Color Matching & Composition” এর উপর তিন দিনের Workshop এর আয়োজন করা হয়।

Workshop টি পরিচালনা করেন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারস সোসাইটির Chief Designer ‘রিসাতুল ইসলাম’। Workshop টির বিষয়ে তিনি বলেন, ”গ্রাফিক্স ডিজাইনার, ওয়েব ডিজাইনার, ইন্টেরিয়র ডিজাইনার কিংবা পার্সোনাল কাজের জন্য কালার নির্বাচন খুব দরকারী একটা বিষয়।যারা এসব কাজে একদম নতুন তারা সবচেয়ে বেশি সমস্যায় পড়েন সঠিক কালার নির্বাচনে।সেজন্যই আমি নতুনদের জন্য চেষ্টা করেছি, কালার থিউরি এর মাধ্যমে সঠিক কালার নির্বাচন করার ব্যাপারে আইডিয়া দেওয়ার। সবাই অনেক হেল্পফুল ছিলো আর TES কে এরকম আয়োজনের জন্য ধন্যবাদ জানাই।”

তিন দিন এর Workshop এ কালার থিউরি নিয়ে আলোচনা করা হয় এবং কারার ম্যাচিং এর ভিন্ন ভিন্ন থিউরি এবং মনস্তাত্ত্বিক বিষয়ের উপর Color Composition এর প্রভাব নিয়ে আলোচনা করা হয়। একেকটা রং একেক ভাবে মানবমনে প্রভাব ফেলে। এই প্রভাব এমনই শক্তিশালী যে, চিকিৎসা ক্ষেত্রে স্টিমুল্যান্ট, প্লাসিবো বা স্বান্ত্বনামূলক ওষুধ বানাতে দেহমন চাঙা করার জন্য উজ্জ্বল কমলা বা লাল রং ব্যবহার করা হয়। লাল মানুষকে উত্তেজিত করে, এমন কি খিদেও বাড়িয়ে দেয়, এজন্য বেশির ভাগ খাবারের ব্র্যান্ডগুলো লাল রং ব্যবহার করে। হলুদ মানে আবেগ, আশা, সৃজনশীলতা, আত্মবিশ্বাস। আর সবুজ হচ্ছে প্রকৃতি, ভারসাম্য, ইতিবাচকতা- ইত্যাদির প্রতীক। তাছাড়াও Color Matching & Composition এর কিছু ব্যাবহারিক প্রয়োগ সম্পর্কে ধারনা দেয়া হয়।

টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারস সোসাইটির সদস্য ফয়সাল মাহমুদ সেজান এর কাছে উক্ত কোর্স এর অংশগ্রহন কারী হিসেবে কোর্সটি সম্পর্কে জানতে চাওয়ায় বলেন, কালার আমাদের জীবনের সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িত। দৈনন্দিন জীবনে আমাদের জানা-অজানা অনেক ক্ষেত্রেই আমরা কালারের ব্যবহার করে থাকি। রং আমাদের মনের ভাব গুলোকে মানুষের সামনে ফুটিয়ে তুলতে সহায়তা করে। টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং সোসাইটি কর্তৃক আয়োজিত কালার কম্পোজিশন সেশনটি আমাদেরকে এই কালার সম্পর্কে সুস্পষ্ট ভাবে ধারণা দিয়েছে।এই কোর্সটি করার মাধ্যমে আমরা কালারের কম্পজিশন গুলো খুব ভালোভাবে বুঝতে পেরেছি এবং দৈনন্দিন জীবনে নিজেকে আরও সুন্দর এবং পরিপাটি করার জন্য এই কালার কম্পোজিশন গুলো আমাদের জন্য অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। ধন্যবাদ TES টিম কে এত সুন্দর একটি কোর্স আমাদেরকে উপহার হিসেবে দেওয়ার জন্য।

রঙয়ের ব্যবহার যেহেতু মানুষের মনের উপর প্রভাব বিস্তার করতে বিরাট ভূমিকা রাখে, তাই রঙের সঠিক ব্যবহার সম্পর্কে ধারনা থাকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ । বিভিন্ন রং আমাদের মনে বিভিন্ন অনুভুতির সৃষ্টি করে, তাই রঙ এর ব্যবহারে হতে হয় সতর্ক। টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারস সোসাইটির সদস্যদের এই ধারনাটুকু পৌছে দিতেই এই Workshop এর আয়োজন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Post

Most Popular

Related Post

Related from author

error: Content is protected !! Don\\\\\\\\\\\\\\\'t Try to Copy Paste.