Home Life Style & Fashion সাংস্কৃতিক ও পরিবেশগতভাবে ফ্যাশন সিস্টেমের গঠন:

সাংস্কৃতিক ও পরিবেশগতভাবে ফ্যাশন সিস্টেমের গঠন:

প্রথমে আমি পরিবেশগতভাবে টেকসই ফ্যাশন সিস্টেমের গঠন নিয়ে কিছু বলবো। ফ্যাশন নিয়ে বলতে গেলে প্রথমে পোশাক এর কথা তুলে ধরতে হবে কারন পোশাক মানুষের সবচেয়ে দরকারি জিনিসগুলোর মধ্যে একটি। এটা ছাড়া এক পাও চলার উপায় নেই। প্রয়োজন পূরণে সবাইকেই পোশাক কিনতে হয়। কিন্তু বর্তমানে প্রয়োজন ছাড়াও বহু মানুষকেই নতুন নতুন পোশাক কিনতে দেখা যায়। বেশিরভাগ সময়ই তারা এগুলো কেনে খুব সস্তায়। কয়েকবার পরার পরেই তা ফেলে দিতে হয়। কেউ কেউ পরার জন্য নয়, শুধুমাত্র ওয়্যারড্রোবে বৈচিত্র আনার জন্য একগাদা কাপড় কিনে থাকে। নিত্য-নতুন ফ্যাশনের কারণে এমন অভ্যাস। ফলে চাহিদা পূরণে গড়ে উঠেছে বিশাল ফ্যাশন শিল্প।

কিন্তু মানুষের এই অতিরিক্ত ফ্যাশনের ধকলে তিলে তিলে শেষ হয়ে যাচ্ছে পৃথিবী। পোশাক ও ফ্যাশনশিল্প গ্রিনহাউস গ্যাস নিঃসরণ করছে ভয়াবহ মাত্রায়। দূষিত করছে বায়ু, পানি, মাটি ও প্রাণ-প্রকৃতি। সৃষ্টি করছে মাত্রাতিরিক্ত বর্জ্য। যা শেষে জলবায়ু ও পরিবেশের জন্য খুব ভয়াবহের কারন হয়ে দাঁড়াচ্ছে। তাই জলবায়ু ও পরিবেশ বাঁচাতে চায় টেকসই ও প্রকৃতিবান্ধব ফ্যাশনশিল্প।

প্যান্টে রঙ করার জন্য যে কেমিক্যাল ডাই ব্যবহার করা হয়, তা খুবই ক্ষতিকর। ডেনিমে সবচেয়ে বেশি ব্যবহার করা হয় কেমিক্যাল ইন্ডিগো। এগুলো বিভিন্ন রকমের ক্ষতিকর রাসায়নিক তেল এবং ইঁদুরের বিষ থেকে তৈরি। ডেনিমে কেমিক্যাল শুধু রঙের জন্য নয়, কাপড় নরম করার কাজেও লাগে। এটি যেখানে উৎপাদন করাহয়, বিশেষ করে ধোয়া হয় তার আশপাশের জমির উর্বরতা কমে যায়। পাশাপাশি এর তরল বর্জ্য জলাশয় ও পানির অন্যান্য উৎসকে দূষিত করে। কয়েক বছর ধরে পরিবেশ রক্ষায় সাসটেইনেবল ফ্যাশনের চর্চা শুরু হয়েছে। আর সেই সুবাতাসে ভেসে ফ্যাশন বিশ্বে এসেছে ‘জিরো ওয়েস্ট ডেনিম’। এটি হলো ডেনিমের একধরনের সাসটেইনেবল কালেকশন, যা তৈরিতে খুব কম পানি ও কেমিক্যাল ব্যবহার করা হয়।

পশ্চিমের অনেক বিখ্যাত ব্র্যান্ড এখন এ ধরনের পোশাক বাজারে এনেছে। উদ্দেশ্য একটাই—কীভাবে পরিবেশের ক্ষতি না করে ডেনিম তৈরি করা যায়। এ জন্য একেক কোম্পানি একেক পদ্ধতি ও প্রযুক্তি ব্যবহার করছে। বাদ যাচ্ছে না লেজার টেকনোলজি, পিছিয়ে নেই রিসাইকেল পদ্ধতি। সব মিলিয়ে তৈরি হচ্ছে পরিবেশবান্ধব ডেনিম।

এখন আমি সাংস্কৃতিকভাবে টেকশই ফ্যাশন সিস্টেম নিয়ে কিছু তুলে ধরবোঃ-

অনেকগুলো সংস্কৃতির মধ্যে আমি চীনের একটা সাংস্কৃতিক টেকশই ফ্যাশন সিস্টেম তুলে ধরলামঃ

শিল্প বিশেষজ্ঞদের বলেন যে, চীন এর টেক্সটাইল এবং গার্মেন্টস শিল্পের নতুন অবস্থান হয়ে উঠেছে। সামাজিক দায়িত্ব, প্রাকৃতিক পরিবেশ, ইত্যাদি থেকে মানুষ এবং প্রকৃতির মধ্যে সুসংহত সহানুভূতির অন্বেষণ, পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তি, নবায়নযোগ্য শক্তির উপর সবুজ উদ্ভাবনী ডিজাইন, এবং নিম্ন শক্তি খরচ নতুন সুযোগ হয়ে উঠছে এবং ফ্যাশন রূপান্তরকে উন্নীত করবে শিল্প।

* চীন টেক্সটাইল ইন্ডাস্ট্রির ফেডারেশনের সোস্যাল রিসার্ভিশন অফিসের ডিরেক্টর শিয়ু ইয়ান বলেন, টেকসই ফ্যাশনটি উদ্ভাবন, বাস্তুসংস্থান এবং দৈনন্দিন জীবনের প্রয়োজন। এটি শিল্পের নকশা এবং উৎপাদনের থেকে, শিল্প শৃঙ্খলের উত্থান এবং প্রান্তিকের সহযোগিতায় এবং ভোক্তাদের দৈনিক জীবন এবং ভোক্তা সচেতনতা থেকে গঠিত হতে হবে। স্থায়ী ফ্যাশন ইকোসিস্টেম।

* ঐতিহ্যবাহী হস্তশিল্প এবং আধুনিক নন্দনতত্বের সমর্থক জাকব্র্যান্ডের প্রতিষ্ঠাতা লিন শিই বলেছিলেন যে, দাবির অনুপস্থিতিতে চৈনিক ঐতিহ্যবাহী শিল্প ও কারুশিল্পগুলি অদৃশ্য হয়ে যাবে। আমরা মিয়াও সূচিশিল্প,বাটিক এবং রেশম রীলের মধ্য দিয়ে চলেছি। ঐতিহ্যবাহী পোশাক এবং হস্তশিল্প বোঝে, ফ্যাশন রূপান্তরিত হয়, এবং তারা প্রদর্শনী, বই এবং সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের অন্য রূপগুলির মাধ্যমে নতুন জীবনীশক্তি প্রদান করে। ঐতিহ্যবাহী সংস্কৃতি এগিয়ে নেওয়ার জন্য দেখার পর্যায়ে থাকতে পারে না, একটি সুস্থ পরিবেশগত শৃঙ্খল হওয়া আবশ্যক, এবং টেকসই উন্নয়ন জন্য একটি সরবরাহ এবং চাহিদা বাজার আছে।

* চীন ফ্যাশন ডিজাইনার্স অ্যাসোসিয়েশনের ভাইস চেয়ারম্যান এবং চীন ফ্যাশন ডিজাইন জন্ডিং পুরস্কার ডিজাইনার চেন ভেন তিনটি ক্ষেত্রে টেকসই ফ্যাশন উন্নয়ন জোর। প্রথম, মূল ব্র্যান্ড এবং মূল নকশা টেকসই উন্নয়ন গুরুত্বপূর্ণ দিক। এটি সংস্কৃতি এবং নকশা সংহত প্রয়োজন। এক, দ্বিতীয়, চীন নতুন ও পুরাতন গতিসম্পন্ন শক্তির রূপান্তর পর্যায়ে রয়েছে, নতুন উত্পাদন মোডের অধীনে একটি সবুজ শিল্প শৃঙ্খল নির্মাণ করা প্রয়োজন এবং প্রযুক্তি ও ফ্যাশন সংমিশ্রণে মনোযোগ প্রদান করা; তৃতীয়ত, মূলধারার ভোক্তা গ্রুপের পরিবর্তনের সাথে, ফ্যাশন জীবনধারা নতুন ফ্যাশন, নতুন মিডিয়া, নতুন খুচরো মাধ্যমে নতুন জীবনধারার মডেলকে নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য ঋতু, বয়স, দূরত্ব, অনুষ্ঠান অতিক্রম করছে।

* কানাডিয়ান ডিজাইনার এবং টিশ স্কিভিজেরসৃজনশীল পরিচালক অ্যামিলি মোঙ্গারিও এর নীতি সম্পর্কে উপস্থাপন করেছেন। তিনি বিশ্বাস করেন যে দ্রুত ফ্যাশন যুগ পাস এবং এটি এখন ধীর ফ্যাশন প্রবেশ করা উচিত। যখন আমরা একটি দেশের ফ্যাশন সংস্কৃতি পরিমাপ করি, তখন তার ডিজাইন এবং উৎপাদনটি পরিমিত ধীর গতিতে আরো মনোযোগ দেওয়া হয়। যখন আমরা একটি পণ্য ভোক্তাদের হাতে রাখি, এটি শিল্পকর্ম হওয়া উচিত। অতএব, স্পষ্টভাবে গ্রাহকদের কি সত্যিই চান এবং একটি লক্ষ্যযুক্ত পদ্ধতিতে উত্পাদন বহন করতে হবে তা নির্ধারণ করতে হবে। উদাহরণস্বরূপ, আমাদের জ্যাকওয়াড লুম মেশিন এবং বয়ন মেশিন গ্রাহক দ্বারা কাস্টমাইজ করা যায়।

• টেকসই ফ্যাশন ভবিষ্যতের উন্নয়ন জন্য, অংশগ্রহণকারী বিশেষজ্ঞ বিশ্বাস করেন যে চীনা ফ্যাশন শিল্পের টেকসই উন্নয়ন ইতিমধ্যে একটি ভাল শিল্প ভিত্তি আছে মিলিয়ন বছরের ভোক্তাদের আরো সচেতনতা এবং পরিবেশ রক্ষার জন্য বাসনা আছেে

* একই সময়ে, চীনা ফ্যাশন শিল্পের টেকসই উন্নয়ন কিছু অবমুক্ত এখনও আছে। প্রথমে সচেতনতা এবং ধারণাগুলির প্রচার হয়। টেকসই উন্নয়ন সংস্কৃতি, উত্পাদন, নকশা, এবং একটি সম্পূর্ণ শিল্প শৃঙ্খল থেকে অবিচ্ছিন্ন ভোক্তাদের দ্বারা নির্মিত। এটি অর্জন করা যেতে পারে যে মান শৃঙ্খলে একটি লিঙ্ক না, কিন্তু একে অপরের সহযোগিতা এবং সমর্থন আরও সম্পদ এবং লিঙ্ক প্রয়োজনবিশেষজ্ঞদের মতে, আরো কর্মী টেকসই ফ্যাশনে আরো ধারণা এবং সম্পদ বিনিয়োগ করতে সক্ষম হবে, চেতনাকে কর্মে পরিণত করবে এবং কর্মের ভিত্তি তৈরি হবে এবং সামগ্রিক সামাজিক পরিবেশের উন্নয়নে বিভিন্ন শিল্প, প্রযুক্তি এবং সম্পদগুলির অনুভূমিক একীকরণকে উন্নীত করবে।

লেখকঃ

প্রত্যয় মজুমদার মিথুন
ডিপার্টমেন্ট : টেক্সটাইল ইন্জিনিয়ারিং
ব্যাচঃ ২০১
BGMEA UNIVERSITY OF FASHION AND TECHNOLOGY

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Post

Most Popular

Related Post

Related from author